পারব না কে, না বলো। নিজেকে খুজে বের করো পৃথিবীর সবচেয়ে ধনী ব্যাক্তি দের একজন-- জেফ বেজোস ভয়কে করতে হবে জয় হার না মানার গল্প  গুগল ও ফেজবুকের প্রতিষ্ঠাতা সবচেয়ে বেস্ট মটিভেশনাল স্পিকার-  সন্দীপ মহেশ্বরী

Monday, July 8, 2019

মুসলিম বিজ্ঞানী ও মনিষী (আল বাত্তানী)



মনিষীদের জিবনীর  গল্পের  এই পর্বে রয়েছে আল বাত্তানী। 

আল বাত্তানীর জন্ম তারিখ সঠিক ভাবে জানা যাইনি। যতদূর জানা যায় আল বাত্তানী  ৮৫৮ খ্রিষ্টাব্দে মেসোপটেমিয়ার অন্তর্গত ‘বাত্তান ’ নামক স্থানে জন্ম গ্রহণ করে। পিতার নাম জাবীর ইবনে সানান। প্রাথমিক শিক্ষা তিনি পিতার কাছ থেকেই লাভ করেন।


 
আল বাত্তানীর জীবনের কিছু আবিষ্কার।

১.  তিনিই প্রথম নির্ভূল পরিমাপ করে দেখিয়ে ছিলেন যে, এক সৌর বৎসর ৩৬৫ দিন ৫ঘন্টা ৪৬মিনিট ২৪ সেকেন্ড।

২. বিশ বছর বয়সেই তিনি জ্যোর্তিবিজ্ঞানী ও পন্ডিত হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে সামর্থ হন।

৩. তিনি বিজ্ঞানী টলেমির ধারণা সূর্যও চন্দ্র গ্রহণ ধারণা ভুল প্রমাণিত করেন। তিনি প্রমাণ করেন যে , সূর্যের আপাত কৌণিক ব্যাসার্ধ বাড়ে ও কমে।
৪. নতুন চন্দ্র দেখার ব্যাপারে তিনি সম্পূর্ণ নির্ভূল বক্তব্য পেশ করেন।
৫. তিনি প্রমাণ করেন যে সূর্য তার নিজস্ব কক্ষে গতিশীল।

৬. আল বাত্তানীই সর্বপ্রথম আবিষ্কার করেন যে, ত্রিকোণমিতি হচ্ছে একটি স্বয়ং স্বাধীন বিজ্ঞান।
৭. সাইন, কোসাইনের সঙ্গে ট্যানজেস্টের সম্পর্ক  আল বাত্তানীই প্রথম আবিষ্কার করেন।

 আল বাত্তানীই প্রথম অংক শান্ত্রে বহু গ্রন্থ রচনা করেন।  মুসলিম মনীষীগণের জ্ঞান বিজ্ঞান দিয়েই অমুসলিমগণ আজ জ্ঞান বিজ্ঞানের শীর্ষে উন্নীত হয়েছে। আপরদিকে মুসলিম জাতি তাদের পূর্ব পুরুষদের জ্ঞান বিজ্ঞান সাধনাকে উপেক্ষা করে আজ অমুসলিমদের মুখাপেক্ষী হয়ে আছে।  এই মহান মনিষী ৯২৯ খ্রিষ্টাব্দে ৭২ বছর বয়সে পরলোক গমন করেন।

0 Comments:

Post a Comment