পারব না কে, না বলো। নিজেকে খুজে বের করো পৃথিবীর সবচেয়ে ধনী ব্যাক্তি দের একজন-- জেফ বেজোস ভয়কে করতে হবে জয় হার না মানার গল্প  গুগল ও ফেজবুকের প্রতিষ্ঠাতা সবচেয়ে বেস্ট মটিভেশনাল স্পিকার-  সন্দীপ মহেশ্বরী

Tuesday, July 2, 2019

ভাগ্যের খেলা

ভাগ্যের খেলা হলো  এটাই, “ আমাদের যা নেই যখন আমরা সেটা নিয়ে ভাবতে থাকি বা সেটা দেখতে থাকি আর আমরা তা চাইতে থাকি কোন ধরনের পরিশ্রম করা ছাড়াই। তখন আমাদের ভাগ্যে খারাপ হয়। আর আমরা যখন  সেটার দিকে দেখি যা আমাদের আছে  মূহূর্তে আমাদে ভাগ্যে ভালো হয়ে যাই।।



মটিভেশনাল বাংলা গল্প

কোন এক গ্রামে  সামনা সামনি দুটি বাড়ি একটা বাড়িতে শুধু একটি মাত্র ছোট একটি ঘর। মিডিল ক্লাস ফ্যামিলি। বাড়িতে এক বাচ্চা  আছে। অন্যদিকে ফ্লাটের সামনে এক অনেক বড় বাড়ি। অনেক ধনী পরিবার বাস করে বাড়িতে। বাড়িতে এক বিলিনিয়রের বাচ্চা থাকে।  এক ব্যাক্তি একদিন রাস্তায় বসে ছিল সে দেখল     ধনীর ছেলেটি বড় একটা প্রাইভেট গাড়িতে বসে স্কুল যাচ্ছে। ড্রাইভার গাড়ী চালাচ্ছে আর সে গাড়ির পেছনে বসে আছে।দামী দামী পোশাক পরিচ্ছদ পরে।

একটু পরেই সে দেখল মিডিল ক্লাস ফ্যামিলির ছেলেটা তার বাবার সাথে স্কুটারে করে বসে বসে স্কুল যাচ্ছে   আর ছেলেটি তার বাবাকে বলছে , “  আমি স্কুলে আর যাব না তুমি আমাকে নতুন  জামা কিনে দিচ্ছ না।”  বাবা তাকে বোঝালো, “ আমরা গরিব মানুষ এত টাকা কোথায়।।

যেই লোকটি রাস্তাই বসে ছিল সে ভাবল, “ আহ ধনীর ছেলেটার কি কপাল , বড় গাড়ি , বড় গাড়ি, নতুন নতুন পোশাষ, আরো না জানি বাড়িতে কত কিছু রাখা হয়েছে তার জন্য। আর গরীবের ছেলেটা এর কপাল খুবই খারাপ যে এই রকম বাড়িতে জন্মেছে। ” 

 সেই দিন সন্ধ্যার সময় লোকটি আবারো সেই একই জায়গায় এসে বসল আর দেখল যে মিডিল ক্লাস ফ্যামিলির ছেলেটা সে তার বন্ধুদের সাথে তার বাড়ির পাশে ফাকা গলিতে খেলা করছে। খেলছে, গাইছে, দৌড়াদৌড়ি করছে। অপরদিকে সেই ছেলেটা যার কপাল খুব ভালো বসে সকালে মনে হচ্ছিল তাকে সে দেখল তাদের বাড়ির বড় ব্যালকনিতে দাড়িয়ে থাকতে। সে শুধু সেখানে দাড়িয়ে তাদেরকে খেলা করতে দেখছে।  বিভিন্ন কারণে তার খেলতে যেতে নিষেধ। লোকটি দেখল ধনীর ছেলেটা সেখানে দাড়িয়ে দাড়িয়ে কাঁদছে।
এবার সে মিডিল ক্লাস ছেলেটির দিকে তাকালো। সে দেখল ছেলেটি মাঝে মাঝেই বাড়িটির দিকে তাকাচ্ছে আর কিছু একটা ভাবছে।

 Bangla Motivation

লোকটি এবার পুরো বিষয়টা পরিষ্কার বুঝতে পারল। অনেক অনেক  টাকা পয়সা বড়দের জন্য অনেক কিছু হলেও তা ছোট দের জন্য কোন মূল্যই রাখে না। ছোটরা তো শুধু খেলাতে আনন্দ পাই। ধনীর ছেলেটির হইত বড় এক ঘর ভর্তি খেলনা রয়েছে। কিন্তু তার কোন খেলার সাথী নেই। তার খুশি কেড়ে নেওয়া হয়েছে তার কাছ থেকে। খেলাতেই তার খুশি


আর বাচ্চা যে নিচে খুশি মনে খেলছে তো  খেলছেই। সে মাঝে মাঝে এটাই ভাবছে যে আমার কেন এরকম একটা বাড়ি নেই। আমার কেন এত নতুন নতুন জামা কাপড় নেই।আমিও খুশি হতাম আমার জিবনও খুশিতে ভরে যেত।

নৈতিকতা:: ভাগ্যের খেলা হলো  এটাই, “ আমাদের যা নেই যখন আমরা সেটা নিয়ে ভাবতে থাকি বা সেটা দেখতে থাকি আর আমরা তা চাইতে থাকি কোন ধরনের পরিশ্রম করা ছাড়াই। তখন আমাদের ভাগ্যে খারাপ হয়। আর আমরা যখন  সেটার দিকে দেখি যা আমাদের আছে  মূহূর্তে আমাদে ভাগ্যে ভালো হয়ে যাই।।

bangla motivational story 



0 Comments:

Post a Comment